র‌্যাবের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়ে গর্হিত কাজ করেছে যুক্তরাষ্ট্র: প্রধানমন্ত্রী

আহম্মদ ফয়েজ
2022.03.28
ঢাকা
Share on WhatsApp
Share on WhatsApp
র‌্যাবের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়ে গর্হিত কাজ করেছে যুক্তরাষ্ট্র: প্রধানমন্ত্রী র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) ১৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে গণভবন থেকে ভার্চ্যুয়ালি প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ২৮ মার্চ ২০২২।
[ফোকাস বাংলা]

র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে যুক্তরাষ্ট্র ‘অত্যন্ত গর্হিত কাজ’ করেছে বলে মনে করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। জঙ্গিবাদ, মাদক, খাদ্যে ভেজালরোধসহ নানা কর্মকাণ্ডে র‌্যাবের ভূয়সী প্রশংসা করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিনা দোষেই যুক্তরাষ্ট্র র‌্যাবের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে।

“তারা (যুক্তরাষ্ট্র) অপরাধীদের রক্ষা করে ও তাদের দেশে আশ্রয় দেয় এবং কোনো প্রকার অপরাধ ছাড়াই আমাদের দেশে (র‌্যাব ও এর বর্তমান এবং সাবেক সাত কর্মকর্তার ওপর) নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে। এটাই তাদের চরিত্র। কাজেই তাদের ব্যাপারে এ ছাড়া আমি আর কী বলতে পারি…”

সোমবার র‌্যাবের ১৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন উপলক্ষে প্রধান অতিথি হিসেবে তাঁর সরকারি বাসভবন থেকে ভার্চ্যুয়ালি যুক্ত হয়ে অনুষ্ঠানে ভাষণ দেয়ার সময় এ কথা বলেন শেখ হাসিনা।

গত বছরের ১০ ডিসেম্বর গুরুতর মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগে র‌্যাব ও সংস্থাটির সাবেক এবং বর্তমান সাত কর্মকর্তার ওপর নিষেধাজ্ঞা দেয় যুক্তরাষ্ট্র। আন্তর্জাতিক মানবাধিকার দিবসে পৃথকভাবে এই নিষেধাজ্ঞা দেয় যুক্তরাষ্ট্রের ট্রেজারি ডিপার্টমেন্ট (রাজস্ব বিভাগ) ও পররাষ্ট্র দপ্তর।

এই নিষেধাজ্ঞার পর সোমবারই প্রথমবারের মতো কোনো অনুষ্ঠানে এ নিয়ে মন্তব্য করলেন প্রধানমন্ত্রী। এমন সময় তিনি মন্তব্য করছেন, যখন গত সপ্তাহে বাংলাদেশ-যুক্তরাষ্ট্র অষ্টম অংশীদারি সংলাপে অংশ নিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের স্টেট ডিপার্টমেন্টের আন্ডার সেক্রেটারি ভিক্টোরিয়া নুল্যান্ড এবং আগামী সপ্তাহে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন যুক্তরাষ্ট্রে যাবার কথা রয়েছে।

নিজেদের বাহিনীর বিরুদ্ধে ‘ব্যবস্থা নেয় না যুক্তরাষ্ট্র

“আমাদের দেশের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংস্থা, র‌্যাব বা পুলিশ যে কেউ তারা নিজেরা যদি কোনো অপরাধে জড়িয়ে পড়ে, আমরা কিন্তু তার শাস্তির ব্যবস্থা করি। কিন্তু দুর্ভাগ্যের বিষয় হচ্ছে, যারা আমাদের বিনা কারণে, বিনা দোষে, র‌্যাবের কয়েকজন সদস্যের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে, তাদের দেশে কিন্তু এ ধরণের অপরাধ করলে তাদের কোনো বাহিনীর বিরুদ্ধে তারা কোনোরকম শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করে না,” বলেন প্রধানমন্ত্রী।

“রাস্তায় ফেলে পা দিয়ে গলা চিপে মেরে ফেলে দিলো…” প্রধানমন্ত্রী ২০২০ সালের মে মাসে মিনেয়াপোলিস শহরে আফ্রো-আমেরিকান নাগরিক জর্জ ফ্লয়েডকে হত্যার ঘটনা স্মরণ করে বলেন, “সেখানে যদি আইনশৃঙ্খলা রক্ষার নামে যদি কেউ কোনো অপরাধ করে, তাদের কিন্তু সেখানে কোনো শাস্তি দেওয়া হয় না।”

যদিও ফ্লয়েডকে হত্যার দায়ে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাকে শাস্তি দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের আদালত।

“বাংলাদেশ পৃথিবীতে একমাত্র দেশ, যেখানে কেউ অপরাধ করলে আমরা তার শাস্তির বিধান করি,” বলেন প্রধানমন্ত্রী।

ঢাকার হালি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলা মোকাবেলা থেকে শুরু করে জলদস্যু, বনদস্যু ও মাদক চোরাকারবার নিয়ন্ত্রণসহ নানা ক্ষেত্রে র‍্যাবের বিপুল সাফল্য রয়েছে বলে উল্লেখ করেন শেখ হাসিনা।

“সত্য হচ্ছে, বাংলাদেশ এক্ষেত্রে সাফল্য অর্জন করেছে। তাই সেক্ষেত্রে এ ধরনের নিষেধাজ্ঞা জারি করা অত্যন্ত গর্হিত কাজ বলে আমি মনে করি,” বলেন প্রধানমন্ত্রী।

র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) সদরদপ্তরে সংস্থাটির ১৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত কর্মকর্তারা। ২৮ মার্চ ২০২২। [ফোকাস বাংলা]
র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) সদরদপ্তরে সংস্থাটির ১৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত কর্মকর্তারা। ২৮ মার্চ ২০২২। [ফোকাস বাংলা]

অপপ্রচারে লিপ্ত কয়েকজন প্রবাসী বাংলাদেশী

বিদেশে বসে কয়েকজন বাংলাদেশি দেশবিরোধী অপপ্রচারে জড়িত উল্লেখ করে তিনি বলেন, “সব থেকে দুঃখজনক হল আমাদের দেশের কিছু মানুষ বাংলাদেশের বিরুদ্ধে নানা ধরণের অপপ্রচার চালায়। যারা অপপ্রচার চালায় তারা কিন্তু অপরাধী।”

এই ব্যক্তিরা কোনো না কোনো দোষে হয়ত চাকরি হারিয়েছে নয়ত দেশ ছেড়েছেন উল্লেখ করে তিনি বলেন, “সেখানে যেমন যুদ্ধাপরাধীরাও স্থান পেয়েছে, তেমনিভাবে জাতির পিতার খুনি, আত্মস্বীকৃত ও সাজাপ্রাপ্ত আসামি সেও কিন্তু আমেরিকায় বসবাস করছে। তাকে তারা ওখানে সিটিজেন করে নিয়েছে।”

বঙ্গবন্ধুর খুনি রাশেদ চৌধুরীকে বাংলাদেশে ফেরত না দেয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের সমালোচনা করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “আমরা বারবার অনুরোধ করছি, প্রেসিডেন্টের কাছে চিঠি দিয়েছি, একের পর এক প্রেসিডেন্ট আসছে, আমরা তার কাছে ধর্না দিচ্ছি। জাস্টিস ডিপার্টমেন্টে আমরা আহ্বান করেছি যে এরা অপরাধী। এরা শিশু হত্যাকারী, নারী হত্যাকারী, খুনি। ১৫ আগস্ট তারা খুন করেছে। তাদের আমাদের দেশে ফেরত দিতে হবে। তারা অপরাধীদের রক্ষা করে তাদের দেশে স্থান দেয়। আর বিনা অপরাধে আমাদের দেশে নিষেধাজ্ঞা দেয়। এটা যাদের চরিত্র তাদের বিষয়ে আর কী বলব।”

প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের বক্তব্য জানতে চেয়ে ঢাকাস্থ মার্কিন দূতাবাস ও যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দপ্তরে যোগাযোগ করে তাৎক্ষণিকভাবে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

ক্রসফায়ার নেই ১০৮ দিনে

গত ডিসেম্বরে প্রায় ৬০০ মানুষকে গুম করার অভিযোগ থাকা র‌্যাবের ওপর যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞার পর থেকে গত ১০৮ দিনে দেশে কোনো ক্রসফায়ারের ঘটনা ঘটেনি বলে জানা গেছে মানবাধিকার সংগঠন আইন ও সালিশ কেন্দ্র (আসক) সূত্রে।

দেশে সর্বশেষ ক্রসফায়ারের ঘটনা ঘটেছিলো গত বছরের ১০ ডিসেম্বর বরিশালে, যখন পর্যন্ত র‌্যাবের ওপর নিষেধাজ্ঞার খবরটি আসেনি।

আসকের তথ্যমতে ২০২১ সালে দেশে ক্রসফায়ারের ঘটনা ঘটেছে ৫১টি। তার মধ্যে ৩০টি ঘটিয়েছে র‌্যাব।

২০০৪ সালে র‌্যাব প্রতিষ্ঠার পর জঙ্গিবাদ দমন ও মাদকবিরোধী অভিযানে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পালন করে আসছে। তবে কথিত বন্দুকযুদ্ধ ও গুমের বেশ কয়েকটি ঘটনায় বাহিনীটি দেশে-বিদেশে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়ে।

মন্তব্য করুন

নীচের ফর্মে আপনার মন্তব্য যোগ করে টেক্সট লিখুন। একজন মডারেটর মন্তব্য সমূহ এপ্রুভ করে থাকেন এবং সঠিক সংবাদর নীতিমালা অনুসারে এডিট করে থাকেন। সঙ্গে সঙ্গে মন্তব্য প্রকাশ হয় না, প্রকাশিত কোনো মতামতের জন্য সঠিক সংবাদ দায়ী নয়। অন্যের মতামতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হোন এবং বিষয় বস্তুর প্রতি আবদ্ধ থাকুন।

মন্তব্য

Abdul Ajij
2022-03-29 01:08

Good!